ফোনের বিস্ফোরণ ঠেকাতে করণীয়

0

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে মাঝে মাঝে ফোনের বিস্ফোরণের খবর পাওয়া যায়। বিভিন্ন নামি-দামি ব্র্যান্ডের ফোন হঠাৎ বিস্ফোরণ ঘটে যা অনাকাঙ্খিত।

এই একবিংশ শতাব্দীতে যুগের সবাই যখন প্রযুক্তি অর্থাৎ স্মার্টফোন নির্ভর, এ সময় এই ধরণের ঘটনা মেনে নেওয়া সত্যি কষ্টকর। সম্প্রতি শাওমি, স্যামসাংসহ বিভিন্ন ফোনের বিষ্ফোরণের ঘটনা সামনে এসেছে৷ আট মাস ব্যবহার পর চার্জ দেওয়ার সময় ফেটে যায় শাওমি ফোনটি ৷ বিস্ফোরণে সম্পূর্ণরুপে নষ্ট হয়ে যায় সেটটি৷ কিছুদিন আগে স্যামসাংয়ের বিরুদ্ধেও উঠেছিল এই একই ধরণের অভিযোগ৷ এমন পরিস্থিতিতে কীভাবে এড়াবেন এ ধরণের ঘটনা।

স্মার্টফোনে বিস্ফোরণের অন্যতম মূল কারণ হিসেবে সামনে এসেছে ওভার-চার্জিংয়ের বিষয়টি৷ বেশিরভাগ ইউজারই রাতে ঘুমনোর সময় সারা রাত ধরে ফোনে চার্জ দিয়ে থাকেন৷ আর বেশি সময় ধরে চার্জ দেওয়ার ফলেই ওভার-হিটিংয়ের সমস্যা দেখা যায়৷ তাই, ফোন ফুল-চার্জ হয়ে গেলেই ফোনটিকে যত তাড়াতাড়ি সম্ভব আন-প্লাগ করুন৷

ফোন চার্জ করার সময় কখনই সেটের উপর কোন জিনিস রাখবেন না৷ এতে ওভার-হিটিংয়ের সমস্যা বেশি দেখা যায়৷ ফলে, খুব তাড়াতাড়ি আগুন ধরে যাওয়ার সম্ভবনা থাকে৷ এছাড়া, ফোন চার্জিংয়ের সময় মুভি দেখবেন না অথবা গেম খেলা থেকে বিরত থাকুন।

ফোন চার্জের সময় ইয়ারফোন ব্যবহার বা ফোনে কথা বলার সময় চার্জ দেবেন না দীর্ঘসময়ের জন্য ফোন চার্জ দেওয়ার সময় কোন গরম জায়গা বা সরাসরি রোদের মধ্যে রেখে চার্জ দেবেন না৷ যেটি বাড়িয়ে দিতে পারে হিটিং ইস্যুকে৷ সব সময় সম্ভব না হলেও চার্জ দেওয়ার সময় ফোনটির কেসটিকে রিমুভ করে নিন৷

স্মার্টফোন চার্জের সময় ব্যবহার করুন স্মার্টফোনটির নিজস্ব ব্রাণ্ডের চার্জার৷ ভুয়া বা অন্য ব্রাণ্ডের চার্জার ব্যবহার ফোনে বিস্ফোরণ ঘটানোর কারণ হতে পারে৷চার্জারের মতই অনেক স্মার্টফোনের ব্যাটারিও বদলের প্রয়োজন পড়ে৷ সেক্ষেত্রে, নির্দিষ্ট স্মার্টফোন সংস্থাটিরই ব্যাটারি ব্যবহার করুন৷ অনেক সময়ই অন্য সংস্থার ব্যাটারি ব্যবহার হয়ে থাকে৷ যা দুর্ঘটনার সম্ভবনাকে বাড়িয়ে দিতে পারে।

Share.

Leave A Reply

− 2 = one