তারেক মাসুদ ও মিশুক মুনীর স্মরণে

0

সাদমান শাওন-  

চলচ্চিত্রকার তারেক মাসুদ ও চলচ্চিত্রগ্রাহক মিশুক মুনীরের ৭ম মৃত্যুবার্ষিকী আজ। এই উপলক্ষে চলছে দেশব্যাপী নানা আয়োজন। গতকাল রোববার শিল্পকলা একাডেমিতে তারেক মাসুদ ও ক্যাথরিন মাসুদের চলচ্চিত্র নিয়ে কর্মশালা আয়োজনে উপস্থিত ছিলেন ক্যাথরিন মাসুদ ।   

এক সাক্ষাৎকারে ক্যাথরিন মাসুম বলেন, ‘তারেকের স্বপ্ন পূরণ হচ্ছে। তরুণ সমাজ এই স্বপ্নকে এগিয়ে নিয়ে চলেছে। তারেক স্বপ্ন দেখত বাংলাদেশকে একটা সহনশীল জাতি হিসেবে। আমরা আজ দেখছি, তরুণ সমাজ এই স্বপ্ন নিয়ে কাজ করছে। আর এটা তাদের কাজ, তাদের কথা, তাদের সৃজনশীলতার মধ্যে প্রকাশ পাচ্ছে।’

তিন দিনব্যাপী এই কর্মশালায় তারেক মাসুদ ও ক্যাথরিন মাসুদের চলচ্চিত্র দেখানো হয়। তাঁদের চলচ্চিত্রযাত্রা, দর্শন নিয়ে আলোচনা হয় তরুণ চলচ্চিত্রকারদের সঙ্গে।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শামসুন্নাহার হলসংলগ্ন সড়কদ্বীপে তারেক-মিশুক স্মৃতিস্থাপনা প্রাঙ্গণে তারেক মাসুদ স্মারক বক্তৃতা ২০১৮ এবং তারেক মাসুদ ও মিশুক মুনীর স্মরণ আলোচনা অনুষ্ঠিত হবে বিকেল পাঁচটায়। এ বছর তারেক মাসুদ স্মারক বক্তৃতার বক্তা চলচ্চিত্রকার আকরাম খান।

অন্যদিকে, সড়ক দুর্ঘটনায় চলচ্চিত্র নির্মাতা তারেক মাসুদ, এটিএন নিউজের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) মিশুক মুনীরসহ পাঁচজনের নিহত হওয়ার ঘটনায় সাত বছর আগে করা মামলার আজো চূড়ান্ত নিষ্পত্তি হয়নি। প্রাণহানির ঘটনায় পুলিশের করা মামলায় বিচারিক আদালতে যাবজ্জীবন কারাদণ্ডপ্রাপ্ত বাসচালকের আপিল এখন হাইকোর্টে শুনানির অপেক্ষায় রয়েছে।

২০১১ সালের ১৩ আগস্ট মানিকগঞ্জের শিবালয় উপজেলার শালজানা গ্রামে ‘কাগজের ফুল’ ছবির শুটিং স্পট দেখে ঢাকা ফেরার পথে দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে তাঁদের বহনকারী মাইক্রোবাসের সঙ্গে বিপরীতমুখী চুয়াডাঙ্গাগামী বিলাশ পরিবহনের একটি বাসের মুখোমুখি সংঘর্ষে হয়।

এতে ঘটনাস্থলেই তারেক মাসুদ, মিশুক মুনীর, মাইক্রোবাস চালক মোস্তাফিজুর রহমান, প্রোডাকশন সহকারী মোতাহার হোসেন ওয়াসিম ও জামাল হোসেন নিহত হন।

Share.

Leave A Reply

two + 6 =