ইতালি’র রাজপ্রাসাদে থাকবেন রোনালদো!

0

ইতালিতে নতুন জীবন শুরু হয়ে গেল ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডোর। রিয়াল মাদ্রিদ ছেড়ে জুভেন্টাসে যোগ দেয়ার পর ছুটি কাটিয়েছেন পর্তুগিজ মহাতারকা। ছুটি শেষে রোববার নতুন মিশন শুরু করতে তুরিনে পা রাখার পরের দিন প্রথমবারের মতো জুভেন্টাস সতীর্থদের সঙ্গে অনুশীলন করলেন রোনাল্ডো।

প্রাক-মৌসুম টুর্নামেন্ট ইন্টারন্যাশনাল চ্যাম্পিয়ন্স কাপে খেলতে বর্তমানে দলের সঙ্গে যুক্তরাষ্ট্রে আছেন কোচ ম্যাসিমিলিয়ানো আলেগ্রি। তার সহকারী আলদো দোলসেভত্তির অধীনে সোমবার রোনাল্ডো ছাড়াও অনুশীলনে অংশ নেন ছুটি কাটিয়ে ফেরা পাওলো দিবালা, গনজালো হিগুয়াইন, দগলাস কস্তা ও হুয়ান কুয়াদ্রাদো।

জুভেন্টাসের ট্রেনিং কমপ্লেক্সের পাশাপাশি তুরিনে নিজের নতুন বাড়িটাও দারুণ মনে ধরেছে রোনাল্ডোর। বাড়ি তো নয়, যেন রাজপ্রাসাদ। তুরিনে পৌঁছে হোটেলের বদলে বন্ধবী জর্জিনা রদ্রিগেজ ও চার সন্তান নিয়ে সরাসরি সেই রাজপ্রাসাদেই উঠেছেন পর্তুগিজ যুবরাজ।

রিয়াল মাদ্রিদ বসেই তুরিনের বাড়িটি পছন্দ করেছিলেন রোনাল্ডো। রাজপ্রাসাদের মতো বাড়িটির নিরাপত্তা পরিচালনা করবে টেরি সিকিউরিটি। ইতালির লা গ্যাজেত্তা দেল্লো স্পোর্ট জানিয়েছে, রোনাল্ডো নিজেই চেয়েছিলেন এমন একটি বাড়ি, যেটা সবচেয়ে আধুনিক স্থাপনা এবং খোলামেলা পরিবেশের হয়। যে বাড়ি তার মাদ্রিদের স্মৃতি মনে করিয়ে দেবে।

একটা নয় দুটি বাড়ি রয়েছে। মাদ্রিদেও তাই ছিল। তুরিনেও প্রায় একই ধরনের বাড়ি পছন্দ করেছেন তিনি। যেখানে পাশাপাশি দুটি বাড়ি। দুটি বাড়িরই প্রবেশপথ ভিন্ন ভিন্ন। রয়েছে বিশাল বাগান, সুইমিংপুল এবং জিমনেশিয়াম। তুরিনে রোনাল্ডোর বাড়িটি ছোট্ট একটি টিলার ওপর অবস্থিত।

যেটা আবার সবুজ বাগানে আচ্ছাদিত। যেন বাড়িটিকে আড়াল করে রেখেছে পুরো বাগান। সবচেয়ে বড় কথা, পাপারাজ্জিদের হাত থেকে রোনাল্ডোকে বাঁচিয়ে দেবে এই বাগান। তার ডুপ্লেক্স বাড়িটির সামনের অংশ ভীষণ আকর্ষণীয়। পেছনের অংশের পাশ ঘেঁষে বয়ে চলেছে একটি নদী। তুরিনের অন্যতম আকর্ষণীয় স্থানে অবস্থিত রোনাল্ডোর বাড়িটি, যা পর্যটকদের কাছেও প্রিয়।

Share.

Leave A Reply

forty eight ÷ twelve =